preloder
THE SENIOR CITIZENS SOCIETY BANGLADESH | Reg: S- 12782 | Contact: +88 02 48955788 | Email: scsdhaka2017@gmail.com
দি সিনিয়র সিটিজেন্স সোসাইটি বাংলাদেশ 2018-10-25T16:03:55+00:00

THE SENIOR CITIZENS SOCIETY

Ensures The Rights and Privileges of the Senior Citizens.

 

Upbringing: Rapid increasing number of older persons is a universal phenomenon. Challenges are also increasing with the growth of older persons everywhere. The Government has been under taking a good number of programs to address the challenges. But it is very tough to discourse all the glitches by the Government alone. In this regard initiatives must be taken in the non-government level as well . Realizing the gravity of the challenges some enlightened senior citizens assembled together and formed the Senior Citizens Society ( SCS) in March, 2017. The SCS formed in the light of the Constitution of Bangladesh, existing laws, rules-regulations and National Policy on Ageing and social longings. It is completely a non –political and non- profit organization.

A huge responses are found from the senior citizens after formation of the SCS As a result a good number of high-ranking govt. officials, retired army officials, professors, bankers, journalists, columnists’ dignified businessmen, and industrialists have paid their support and enrolled themselves as members of the society. In continuation of the support a branch has already started functioning at Chittagong. Responses are coming from different parts of the country. The SCS has been rendering services to ensure rights, privileges, interest and protection of the senior citizens of the country.

Legal and Organizational:
 The Society and its Ad –hoc committee was constituted on 25 March,2017
 The General Meeting of the Society was held on 7 June, 2017. The Memorandum and the article of
Association was approved in the General meeting. The full-fledged committee was formed in the
same meeting.
 The Society achieved its registration under the Society Act of 1860 on 4 December, 2017.
Nature of the Society: It is completely a non-political, non-profiteering, non-sectorial organization believing in
the spirit of the Freedom Fighting.
Field of Activities: The field of activities of the society is entire Bangladesh and has the scheme of extending
its activities abroad legally.

Main Objectives of the Society: To ensure the rights and privileges of the seniors.

Aims of the Senior Citizens Society:
 Implementation of the constitutional provisions, ensuring the legal privileges,
making correspondences with the concerned authorities with a view to achieving
more facilities, protection of interests and overall all out of interests of the senior
citizens using international tools, working vigorously in the welfare and
development of the senior citizens in the perspective of the increasing numbers
of the senior citizens both in the national and international arena.
 Protecting and ensuring the rights of the Senior Citizens & ensuring their
privileges.
 Adopting development programs for the Seniors and implementation of those.
 Taking initiatives to extend range & fields of social security and safety-net
programs for the Senior Citizens.
 Adopting & implementing service & charitable programs for the senior citizens
 Implementing advocacy programs for the seniors.
 Creating public opinion in favor of the senior citizen’s friendly government
programs
 Adopting institutional & community based programs for the senior citizens &
implementation of those.
 Arranging research, publications, policy dialogs , seminars, workshops,
publications on issues related to the interest of the senior citizens .
 Establishing a Centre with a view to implementing those programs
 Establishing specialized hospitals for the senior citizens
 Establishing resorts for the senior citizens
 Conducting mobile health services
 Establishing gymnasium and physio- therapy centres for the senior citizens.
 Arranging health camps for the senior citizens
 Helping the seniors in paying off the bills of the service imparting organizations.
 Creating entertainment facilities, arranging for discounts in tickets of bus, train,
steamer, aeroplanes on travelling at home and abroad and also arranging for
separate counters of collecting tickets.
 Helping the poor and destitute seniors by establishing coordination among the
charitable organizations.
 Donating special helps for the bulk of the hard-up senior citizens.
 Introducing help-line services in tackling any problem of the seniors.
 Helping any person in distress.
 Adopting any programs in protecting the interests of the senior citizens.
 Establishing care homes or residential facilities for the senior citizens
 Establishing library and study centres for the seniors.
 Arrangement of recreational facilities for the senior citizens both at home and
abroad.
 Arranging philanthropic enterprises for the senior citizens.
 Liaising the donors to implement the charitable activities.
 Arranging any other programs for the disadvantaged segment of the population
 Adopting and implementing any other programs in the light of the existing laws of
the soil.

প্রতিষ্ঠার সময়ঃ ২৫ মার্চ, ২০১৭
নিবন্ধনঃ ৪ ডিসেম্বর, ২০১৭
সোসাইটির প্রকৃতিঃ সম্পূর্ণ অরাজনৈতিক, অলাভজনক, অসাম্প্রদায়িক,
মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় বিশ্বাসী সামাজিক সংগঠন।

কর্ম এলাকাঃ সমগ্র বাংলাদেশ

মূল লক্ষ্য

প্রবীণ নাগরিকদের অধিকার সুরক্ষা ও সুযোগ সুবিধা নিশ্চিত করণ।
প্রবীণ নাগরিকদের জন্য মানবিক ও উন্নয়ন কর্মসূচী গ্রহণ ও বাস্তবায়ন।
প্রবীণ নাগরিকদের জন্য সামাজিক কর্মসূচির ক্ষেত্র/পরিধি ও আওতা সম্প্রসারণ এর উদ্যোগ গ্রহণ।
প্রবীণ নাগরিকদের জন্য সেবা ও দাতব্য কর্মসূচি গ্রহণ এবং বাস্তবায়ন।
প্রবীণ নাগরিকদের জন্য এডভোকেসী কার্যক্রম বাস্তবায়ন।
প্রবীণ নাগরিক বান্ধব সরকারী কার্যক্রম গ্রহণে জনমত সৃষ্টি।

উদ্দেশ্য

  • প্রবীণ নাগরিকদের জন্য প্রাতিষ্ঠানিক ও সমাজভিত্তিক কার্যক্রম গ্রহণ ও বাস্তবায়ন।
  • গবেষণা, প্রকাশনা, নীতিনির্ধারণী আলোচনা, সেমিনার ওয়ার্কশপ আয়োজন করা।
  • এ কার্যক্রম বাস্তবায়নের জন্য একটি কেন্দ্র স্থাপন।
  • প্রবীণ নাগরিকদের জন্য বিশেষায়িত হাসপাতাল স্থাপন।
  • ভ্রাম্যমান চিকিৎসা সেবা কার্যক্রম পরিচালনা করা ।
  • প্রবীণ রিসোর্ট স্থাপন করা।
  • প্রবীণ নাগরিকদের জন্য ব্যায়ামাগার, ফিজিওথেরাপি সেন্টার স্থাপন।
  • হেল্থ ক্যাম্প এর আয়োজন করা।
  • সেবা সংস্থা সমূহের বিল পরিশোধে সহায়তা করা।
  • বিনোদন সুযোগ সুবিধা সৃষ্টি, দেশে এবং বিদেশে ভ্রমণের জন্য বাস, ট্রেন,বিমানের টিকেটে ডিসকাউন্ট প্রদান এবং টিকেট সংগ্রহের জন্য পৃথক কাউন্টার এর ব্যবস্থা করা।
  • লাইব্রেরী ও স্টাডি সেন্টার স্থাপন করা।
  • প্রবীণ ব্যাক্তিদের অধিকার ও সুযোগ সুবিধা নিশ্চিত করার জন্য এডভোকেসি কার্যক্রম পরিচালনা করা।
  • দাতব্য সংস্থার মধ্যে সময় সাধন করে দুস্ত প্রবীণ ব্যাক্তিদের সাহায্য করা।
  • অসচ্ছল প্রবীণ ব্যক্তিদের জন্য বিশেষ সহায়তা প্রদান।
  • প্রবীণ ব্যক্তিদের যে কোন সমস্যা মোকাবেলা করার জন্য হেল্প লাইন সার্ভিস চালু করা।
  • যে কোন অসুবিধাগ্রস্থ ব্যক্তিকে সহায়তা করা।
  • প্রবীণদের স্বার্থ সুরক্ষার জন্য যে কোন ধরণের কার্যক্রম গ্রহণ করা।

কেন দি সিনিয়র সিটিজেন্স সোসাইটি

অবসর গ্রহণের পরে!

অবসর গ্রহণের পরে প্রবীণ নাগরিকগন  বিভিন্ন ভাবে তার অধিকার থেকে বঞ্চিত হন। যদিও তাদের মূল্যায়ন হওয়া উচিৎ সবচেয়ে বেশি, কেননা তারা সমাজের সবচেয়ে অভিজ্ঞতা সম্পন্ন মানুষ । একই সাথে তারা দীর্ঘ সময় দেশ ও সমাজের জন্য কাজ করে অবসর গ্রহণ করেছেন। অথচ অনেক সময়ই তাদের ভবিষ্যৎ অনিশ্চয়তার মাঝে পরে যায়। এছাড়া অন্যের উপর নির্ভরশীলতাও সম্মানিত প্রবীণ নাগরিকগণের মানসিক দুর্বলতার একটি বড় কারণ হয়ে দাঁড়ায় । আর এ সমস্ত বিষয় থেকেই তৈরি হয় হীনমন্যতা এবং ধীরে ধীরে তারা আত্মবিশ্বাস হারিয়ে মানসিক ভাবে দুর্বল হয়ে পড়েন। আর এই মানসিক দুর্বলতার প্রভাব পরে শরীরে । ফলে তারা স্বাভাবিকের তুলনায় অনেক দ্রুত শারীরিক ভাবে দুর্বল হয়ে যেতে থাকেন।

দি সিনিয়র সিটিজেন্স সোসাইটিতে অংশগ্রহণের পরে!

প্রবীণ নাগরিকদের অধিকার সুরক্ষা ও সুযোগ সুবিধা নিশ্চিত করণের লক্ষ্যে দি সিনিয়র সিটিজেন্স সোসাইটি নিরলস কাজ করে যাচ্ছে। বিভিন্ন সামাজিক ও জাতীয় উন্নয়নে সরাসরি কার্যকর ভূমিকা পালন করছে। তাই এখানে অংশগ্রহণের মধ্য দিয়ে আপনি যেমন দেশ ও সমাজের জন্য নিজের অর্জিত অভিজ্ঞতাকে ব্যবহার করতে পারবেন, তেমনি অসংখ্য অধিকার বঞ্চিত সিনিয়র সিটিজেন্স  এর পাশে থেকে তাদের শক্তি যোগাতে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখতে পারবেন। এই সংগঠিত উদ্যোগ এর সাথে সম্পৃক্ততা আপনাকে মানসিক ভাবে প্রফুল্ল রাখতে সহায়তা করবে এবং সামাজিক গুরুত্ব তৈরি করবে। আপনি নিজেকে কখনোই একা মনে করবেন না, কেননা দি সিনিয়র সিটিজেন্স সোসাইটি সব সময় আপনার পাশে রয়েছে এবং থাকবে।

গ্যালারী